ফাইন্যান্সারদের স্মরণীয় একটি দিন

ফাইন্যান্স ২১তম ব্যাচ
ছবি: ফাইন্যান্স ২১তম ব্যাচ

দেখতে দেখতে কিভাবে জানি দুইটি বছর ক্যাম্পাসে পার হয়ে গেলো। এইতো মাত্র কিছুদিন আগে পদার্পন করলাম মতিহারের এই সবুজ চত্বরে । বিভাগের বন্ধু, বান্ধবীরা মিলে সারাদিন রাত ঘোরাঘুরি, আড্ডা, রাত জাগা, ক্যাম্পাসের এপাশ থেকে ওপাশ ছুটে চলা, বিভিন্ন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে অংশগ্রহন করা, জয় পরাজয়ের সংমিশ্রনে এ যেনো এক অন্য রকম পাওয়া।

বিভাগের সবচেয়ে ডাইনামিক আর এ্যারিস্ট্রক্রাট ব্যাচ হিসেবে পরিচিতে আমরা। অকৃত্রিম ভালোবাসার জলন্ত উদাহরণ এই ব্যাচের এক একটা মানুষ।

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ফাইন্যান্স বিভাগের ‘২১তম ব্যাচ’ র কথাই বলছিলাম এতোক্ষন।

আর এই তরুন ফাইন্যান্সারদের স্বরণী দিনটি ছিল ক্লাস পার্টি দিন।

“The aim is to die with Memories Not Dreams”

ক্লাস পার্টির ব্যানারে সাথে
ছবি: ক্লাস পার্টির ব্যানারে সাথে

হৈ-হুল্লোড়, আড্ডা, খেলাধুলা, ফটোসেশন, বাহারি খাবারের আয়োজন,  মনমাতানো গান, নাচ ও আবৃত্তি পরিবেশনের সমন্বয়ে ক্লাস পার্টি আয়োজন হয়ে ওঠে জীবনের অন্যতম দিনগুলোর একটি।

১৯ জানুয়ারি রাবির বনবিভাগে অনুষ্ঠিত এই ক্লাস পার্টিকে সাজানো হয় নানা রঙের বেলুন, ফুল, ব্যানার আর সৃজনশীল বিভিন্ন সাজে যা অনুষ্ঠানে ভিন্ন মাত্রা যোগ করে।

ছবি: খেলাধুলা চলাকালিন

খেলাধুলাঃ মনের আনন্দ বিনোদনের জন্য খেলাধুলা জরুরি তেমনি  অনুষ্ঠানে বিভিন্ন খেলা না থাকলে যেনো হয়ই না। নানা রকম খেলায় ভরপুর ছিলো সকাল থেকে দুপুর পযর্ন্ত।

খাওয়া দাওয়া
ছবি: খাওয়া দাওয়া

খাওয়া দাওয়াঃ অনেকদিন পর সব ব্যাচের সবাই মিলে অনেক মজা করে খাওয়া দাওয়ার পর্ব শুরু হয় দুপুরে।

বছরের পুরো সময়ে যাদের অবতীর্ণ হতে হয় পাঠ্যবই, গতানুগতিক ক্লাস, প্রেজেন্টেশন আর ভালো ফলাফল করতে, সেই  শিক্ষার্থীদের সেদিন দেখা মিলেছে অন্যরকম পরিবেশে। বারবার ফিরো আসুক এরকম হাজারো দিন এটাই যেনো প্রার্থনা ব্যাচের প্রতিটি শিক্ষার্থীর।

 

এম আর মামুন

ফাইন্যান্স বিভাগ, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়