Categories
তারুণ্য দেশ রংপুর শিক্ষা

পার্বতীপুরে সচেতনতা ও উচ্চ শিক্ষা বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত

মাদক, বাল্য বিবাহ রোধ ও উচ্চ শিক্ষা সম্পর্কে শিক্ষার্থীদের সচেতন করতে দিনাজপুর জেলার পার্বতীপুরের বিভিন্ন কলেজে সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শনিববার ও রোববার উপজেলার যথাক্রমে পার্বতীপুর সরকারি কলেজ ও মনমথপুর আইডিয়াল কলেজে এই সেমিনারের আয়োজন করে পার্বতীপুর উপজেলা থেকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের সংগঠন পার্বতীপুর থানা সমিতির সদস্যরা।

সেমিনারের আহ্বায়ক এম আর মামুন বলেন, দেশের বর্তমান উন্নয়নের ধারায় আমাদের এলাকা বরাবরেই অনেক পিছিয়ে সে জায়গা থেকে কলেজের শিক্ষার্থীদের মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি ও উচ্চ শিক্ষায় এগিয়ে নিতেই আমদের এই ক্ষুদ্র প্রচেষ্টা। কারণ আমরা বিশ্বাস করি, একমাত্র শিক্ষায় পারে মানুষকে তার স্বপ্নের পথে এগিয়ে নিতে। এবং এই কার্যক্রম সামনেও চলবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

সেমিনারের অন্যতম বক্তা আবদুল্লাহ্ আল মামুন(মিতুল) বলেন, এবারেই আমরা প্রথম এলাকায় এমন সেমিনার আয়োজন করলাম এবং কলেজের শিক্ষকরা আমাদের সাহায্য ও কার্যক্রমের ভুয়ষি প্রসংশা করেন।

উল্লেখ্য, পার্বতীপুর থানা সমিতি হলো পার্বতীপুর উপজেলা থেকে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের সংগঠন। যারা বিশ্ববিদ্যালয় বিভিন্ন ধরনের কাজ করে থাকে। বিশেষত তারা পার্বতীপুর থেকে রাজশাহীতে আসা শিক্ষার্থীদের সহায়তার চেষ্টা করে যাচ্ছে।

টাইমস/এম আর

Categories
আমার ক্যাম্পাস দেশ রংপুর রাজশাহী

রাজশাহী সিটি কলেজ ছাত্র রাব্বি হত্যার কারণ উদঘাটনে নানা জল্পনা কল্পনা

ভোর রাতে রাস্তার উপর কুপিয়ে হত্যা করা হয় রাজশাহী সিটি কলেজ ছাত্র ফারদিন ইসনা আশারিয়া ওরফে রাব্বিকে। এর কারন উদঘাটনে চলছে নানা জল্পনা কল্পনা।

মঙ্গলবার বাড়িতে ফেরার আগের দিন বড় বোনকে বলেছিলেন সকালের ট্রেনে বাড়ি ফিরবেন সবার আদরের ছোট ভাই রাব্বি। সেই আশায় বাড়ির সবাই রাব্বির জন্য পথ চেয়ে বসেছিলেন। বড় বোন মোমিতা পারভীন গতকাল সকালে ছোট ভাই কতদূর জানার জন্য যখন ফোন দেন, তখন তিনি জানতে পারেন, রাব্বি আর বাড়ি ফিরবে না। ঘাতকদের চাপাতির কোপে প্রাণপ্রদীপ নিভে গেছে তাঁর। আর সেই খবরে যেন মাথায় আকাশ ভেঙে পড়ে বোন মোমিতার। যে ভাইয়ের জন্য বাড়ির সবাই পথ চেয়েছিলেন, সেই ভাইয়ের লাশ নিতে তখন ছুটে যান রাজশাহীর উদ্দেশ্যে।পরে দুপুর একটার দিকে তাঁরা রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পৌঁছে নিহত রাব্বির লাশ দেখে কান্নায় ভেঙে পড়েন দুই বোন।অন্যদিকে পরিবারের অন্য সদস্যরাও যেন শোকে পাথর হয়ে পড়েন।

নিহত রাব্বি রাজশাহী সিটি কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্র। তাঁর বাড়ি দিনাজপুর জেলার পার্বতীপুর উপজেলার মমিনপুর গ্রামে। তিনি ওই গ্রামের মৃত মোজাফফর হোসেন সরকারের একমাত্র ছেলে।

রাব্বিকে গতকাল মঙ্গলবার ভোর সোয়া ৫টার দিকে রাজশাহী নগরীর হেতেমখাঁ এলাকায় রাস্তার ওপরে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। রাব্বি ওই এলাকার ছোট মসজিদের পাশে একটি মেসে থাকতেন।সেখান থেকেই ভোরে ঘুম থেকে উঠে বাড়ির উদ্দেশ্যে রওনা দেন তিনি। রাজশাহী স্টেশন এসে ট্রেন ধরার কথা ছিল রাব্বির। কিন্তু মেস থেকে বের হয়ে পায়ে হেঁটে কিছু দূর যেতেই তাঁকে রাস্তার মধ্যে কুপিয়ে হত্যা করা হয়।হত্যাকাণ্ডের ঘটনাটি মেস থেকে প্রায় ২০০ গজ দূরে। রাব্বি ওই এলাকার মুনসুর মূহরীর মেসের একটি কক্ষে থাকতেন। তাঁর সঙ্গে শাহেদ আক্তার রুদ্র নামের দ্বাদশ শ্রেণিতে পড়ুয়া অপর এক শিক্ষার্থীও একই কক্ষে থাকেন। রুদ্র নগরীর শাহমখদুম কলেজের ছাত্র।

পুলিশের সুরতহাল রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে, প্রায় ৫ফিট ১০ইঞ্চি লম্বা ফারদিন ইসনা আশারিয়া ওরফে রাব্বি (১৮)। তার মাথার পেছনে একটি বড় কাটা দাগা রয়েছে। এছাড়া শরীরের আর কোনো স্থানে আঘাতের চিহ্ন নাই। রাব্বির পরনে ছিল গেবাডিং প্যান্ট ও আকাশি কালার সার্ট। হাতে ছিল হাতঘড়ি। ঘটনাস্থল থেকে জব্দ তালিকায় মালামাল হিসেবে রাব্বির একটি ট্রাভেল ব্যাগ, মানিব্যাগ, একটি মোবাইল ও একটি হাতঘড়ি জব্দ দেখানো হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রাজশাহী মহানগরীর বোয়ালিয়া থানার ওসি (তদন্ত) মাহবুব আলম।

রাজশাহী মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার একরামুল হক বলেন, হত্যাকাণ্ডের ধরণ দেখে মনে হচ্ছে এটি একটি পরিকল্পিত ঘটনা। তাকে চাপাতি দিয়ে একটি কোপেই হত্যা করা হয়েছে। তবে কেন এবং কারা এই হত্যাকান্ডের সঙ্গে জড়িত তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। আমরা সবদিক বিবেচনা করেই হত্যাকান্ডে তদন্ত এগিয়ে নিয়ে যাবো। আশা করি দ্রুতই ঘাতকদের আটক করা যাবে।

পুলিশ জানায়, ভোর ছয়টার দিকে রাব্বির লাশ রাস্তার ওপরে পড়ে আছে খবর পেয়ে খবর পেয়ে পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে। তাকে পেছন থেকে মাথায় কোপ দিয়ে হত্যাকারীরা পালিয়ে যায়। এতে ঘটান্তলেই রাস্তার ওপরে লুটিয়ে পড়ে প্রাণ হারান রাব্বি। পুলিশ সেখানে পড়ে থাকা রাব্বির বাড়ি ফেরার জন্য ব্যবহৃত ট্রাভেল ব্যাগটি জব্দ করেছে। তবে কাউকে আটক করতে পারেনি।

নিহত রাব্বির বোন মোমিতা পারভীন পুলিশকে জানিয়েছেন, তাঁরা চার বোন এক ভাই। সবার ছোট ছিল রাব্বি। চার বোনের তিনজনই স্কুল শিক্ষক। অন্য এক বোন ও সবার ছোট রাব্বি এখনো পড়াশোনা করছেন। আগের দিন সোমবার তাঁর সঙ্গে মোবাইল ফোনে রাব্বির কথা হয়। ওইদিন রাব্বি বোনকে জানান, ঈদের ছুটিতে মঙ্গলবার সকাল ৬ টা ২০ মিনিটের ট্রেন ধরে রাব্বি বাড়িতে ফিরবেন। প্রতিবেশী ও সহপাঠি রিপন মাহন্তের সঙ্গে তিনি বাড়িতে ফিরবেন। কিন্তু গতকাল সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে তিনি যখন ভাইকে ফোন দেন, তখন জানতে পারেন রাব্বিকে কে বা কারা বাড়ি ফেরার পথেই রাস্তায় কুপিয়ে হত্যা করেছে। কিন্তু কেন তাঁর ভাইকে হত্যা করা হয়েছে তা তিনি কিছুই জানেন না। খবর পেয়ে পরে পরিবারের লোকজন রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে ছুটে আসেন রাব্বির লাশ নিতে।

রাব্বির আরেক বোন মানসুরা পারভীন মনা বলেন, ‘একমাত্র ভাইকে নিয়ে আমাদের ভালোবাসার কোনো কমতি ছিল না। তাকে অনেক আদর-ভালোবাসা দিয়ে আমরা মানুষ করেছি। আজ সেই ভাইকে খুন করলো ঘাতকরা। আমার ভাইয়ের কারো সঙ্গে কোনো ঝামেলা ছিল না। কিন্তু কেন তাকে হত্যা করা হলো। এই হত্যার বিচার আমরা চাই।’

রাব্বির সহপাঠি রিপন মাহন্ত বলেন, ‘বাড়িতে যাওয়ার জন্য আগেরদিনই মোবাইলে ফোনে কথা রাব্বির। এর ৪-৫ দিন আগে রাব্বি নগরীর ঝাউতলা এলাকার একটি মেসে থাকা রিপনের সঙ্গে দেখা করে একসঙ্গে বাড়ি যাওয়ার বিষয়টি পাকা করে আসেন। সেই অনুযায়ী গতকাল ভোর সাড়ে ৫টার দিকে রাব্বিকে ফোন দেন রিপন মহান্ত। কিন্তু রাব্বি আর ফোন ধরছিলেন। শেষে সকাল সাড়ে ছয়টার দিকে পুলিশ ফোন রিসিভ করে ঘটনাস্থলে রিপনকে ডেকে নেয়।

এদিকে ইভান নামের আরকে যুবক জানান, প্রায় এক বছর ধরে রাব্বি লাইলি কোটেজ নামে নগরীর হেতেম খাঁতে অবস্থিত তাদের মেসেই ভাড়া থাকতেন। কিন্তু গত ১ আগস্ট রাব্বি সেখান থেকে ছোট মসজিদের কাছের ওই মেসে গিয়ে ওঠেন। রাব্বির বোন মনার সহপাঠি হলেন ইভান। পুলিশ প্রথমে রাব্বি হত্যাকান্ডের বিষয়টি ইভানদেরই জানান। এরপর ইভান ও ওই মেসের সহপাঠিরা রাব্বির লাশ এসে সনাক্ত করেন।

রাব্বির আরেক সহপাঠি বাদশা জানান, রাব্বির কারো সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক ছিল বলে তাদের জানা নাই। তবে রাব্বি অনেকটা প্রতিবাদি যুবক ছিলেন। কোনো অন্যায় পছন্দ করতেন না। যা বলার মুখের ওপর স্পষ্ট করে বলে দিতেন। তার পরেও কারো সঙ্গে তার ঝামেলা বা দ্বন্দ্ব ছিল বলে তাদের জানা নাই।

এদিকে কলেজ ছাত্র রাব্বি হত্যাকাণ্ডের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে ছুটে যান রাজশাহী সিটি কলেজের অধ্যক্ষ সানাউল্লাহ শেখ। তিনি বলেন, ‘রাব্বি মেধাবী শিক্ষার্থী। তার সঙ্গে কারো ঝামেলা আছে বলে জানা নাই। কিন্তু কেন তাকে এভাবে খুন করা হলো ভাবতেই শরীর শিউরে উঠছে।

এদিকে পুলিশের একটি বিশ্বস্ত সূত্র নিশ্চিত করেছে, গতকাল ভোরে যখন রাব্বিকে খুন করা হয়, তখন ওই রাস্তা দিয়ে একজন বৃদ্ধ মসজিদে নামাজ আদায় করতে যাচ্ছিলেন। তিনি রাব্বির সঙ্গে অপর তিজন যুবকের কথাকাটাকাটি হতে দেখেন। তবে ওই বৃদ্ধ কাউকেই চিনতে না পারায় তিনি মসজিদে চলে যান। তবে প্রত্যক্ষদর্শী ওই বৃদ্ধের নাম বলতে পারেনি সূত্রটি।

অন্যদিকে এ ঘটনায় তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় গতকালই থানায় মামলা হয়েছে।

এম আর/টাইমস

Categories
আমার ক্যাম্পাস দেশ রংপুর

ধর্ষকের সর্বোচ্চ শাস্তির দাবিতে বেরোবি বঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদের মানববন্ধন

“তোমার মেয়ে, আমার মেয়ে , তোমার বোন , আমার বোন .. নিরাপদ থাকুক আজীবন” এই স্লোগানে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদের ব্যানারে বৃষ্টিতে ভিজে ধর্ষকের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন করেছে শিক্ষার্থীরা।

বঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদের সভাপতি কাওছার হাবিব অভির সভাপতিত্বে মানববন্ধনটি পার্কের মোড় সংলগ্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের ২নং গেটের সামনে ১১ জুলাই বৃহস্পতিবার দুপুর ১ টায় অনুষ্ঠিত হয়।

এ সময় বঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর উর রহমান বাধন তার বক্তব্যে বলেন, পত্র-পত্রিকায় প্রতিদিনেই কোন না কোন ভাবে মেয়েরা ধর্ষনের শিকার হচ্ছেন এমন খবর পাওয়া যায় , এমনকি বাবাও তার মেয়েকে ধর্ষনের মত ঘৃণ্যতম কাজ করছে, তাই আমাদের দাবি ধর্ষকের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদন্ড দেয়া হোক এবং এটি যেন দ্রুত সম্পন্ন করা হয়।

বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগের ৯ম ব্যাচের শিক্ষার্থী মোঃ বাবুল হোসেনের সঞ্চালনে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, বঙ্গবন্ধু ছাত্র পরিষদের সহ-সভাপতি দেবাশীষ সরকার, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সোহেল সিদ্দিকী, সাংগঠনিক সম্পাদক শুভ হক, এছাড়াও বক্তব্য রাখেন রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী সুমন সরকার, মুন্না খান, শামীম কবির, পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের তাসনিয়া ফাল্গুনী, সমাজবিজ্ঞান বিভাগের শিক্ষার্থী জান্নাতুল ফেরদৌস মিম , আবু রায়হান এবং গণযোগায়োগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের শিক্ষার্থী বাপ্পীসহ অন্যান্য শিক্ষার্থীরা।

বক্তারা তাদের বক্তব্যে ধর্ষকের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদন্ড দাবি করেন। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন বিভাগের শতাধিক শিক্ষার্থী প্লেকার্ড হাতে নিয়ে এই মানববন্ধনে অংশ নেন।

এম আর/বেরোবি

Categories
রংপুর শিক্ষা সারা দেশ

পার্বতীপুরে নিউ’র উচ্চশিক্ষার্থী সমাবেশ ও ইফতার মাহফিল

এম আর মামুন, স্টাফ রিপোর্টার:

পার্বতীপুর উপজেলার মনমথপুর এলাকায় পরিচালিত শিক্ষা ও সামাজিক উন্নয়নমূলক সংগঠন নেটওয়ার্ক ফর এ্যাডুকেশন এন্ড ওয়েলফেয়ার (নিউ) ’র উদ্যোগে উচ্চ শিক্ষায় অধ্যয়নরত অত্র এলাকার কৃতি সন্তানদের নিয়ে উচ্চশিক্ষার্থী সমাবেশ ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (৩ জুন) মনমথপুর আইডিয়াল ডিগ্রী কলেজের কনফারেন্স রুমে এ বছর বিভিন্ন ইউনিভার্সিটিতে চান্স প্রাপ্ত কৃতি শিক্ষার্থীদের বরণের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের শুরু করা হয়।

বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় চান্স প্রাপ্ত শিক্ষার্থীবৃন্দ

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী এম আর মামুন ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতু আহমেদের সঞ্চালনা ও দিনাজপুর সরকারি কলেজের ইতিহাস বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. শরীফুল ইসলাম বিপ্লবের সভাপত্বিতে উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন নিউ’র প্রধান উপদেষ্টা ও দিনাজপুর জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. মো. অহেদুল হক, মনমথপুর আইডিয়াল ডিগ্রী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মো. আমিনুর রহমান, উক্ত কলেজের সহকারী অধ্যাপক মোফাজ্জল হোসেন, মনমথপুর কো-অপারেটিভ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুর রশিদ, ঢাবি ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি গাজিউর রহমানসহ প্রমূখ।

এসময় ডা. অহেদুল হক বলেন, ‘শিক্ষিত মানুষ হিসেবে আমাদের অনেক দায়িত্ব রয়েছে এই অঞ্চলের পিছিয়ে পড়া মানুষ বিশেষ করে যারা অর্থ অভাবে নিজেদের পড়ালেখা চালিয়ে যেতে পারছে না তাদের সাহায্য করা।’

প্রধান উপদেষ্টা আরো বলেন, নিউ একটি নেটওয়ার্ক যার মাধ্যমে এলাকার সকল মানুষের সাথে যোগাযোগ ও সু-সম্পর্ক বজায় থাকবে। সবার মধ্যে উচ্চ শিক্ষা প্রবণতা বৃদ্ধি করা এবং এ বিষয় কোনো শিক্ষার্থী যেনো সমস্যায় না পড়ে সে দিকেও খেয়াল রাখবে নিউ।। নিউ বরাবরের মতই শিক্ষার্থীদের কল্যানে কাজ করে চলছে এবং এর ধারাবাহিকতা অব্যাহত থাকবে বলে আশা ব্যক্ত করেন।

অপরদিকে সংগঠনটির সাধারণ সম্পাদক মো. ইয়ামিন আলী বলেন, ‘প্রত্যেক শিক্ষার্থীর মাঝে লুকিয়ে আছে সুপ্ত প্রতিভা, যা প্রকাশের জন্য তাদের দরকার সঠিক দিক নির্দেশনা এবং নিউ সর্বদা শিক্ষার্থীদের সহায়তার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে এবং ভবিষ্যতেও কাজ করে যাবে।’

অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন, নিউ’র কার্যনির্বাহী সদস্য আহসান হাবীব সাজু। নবীনদের পক্ষে অভিব্যক্তি প্রকাশ করেন নওগা মেডিকেল কলেজের আজমিরা ফারহানা।

উল্লেখ্য, নেটওয়ার্ক ফর এ্যাডুকেশন এন্ড ওয়েলফেয়ার (নিউ) একটি শিক্ষা ও সামাজিক উন্নয়নমূলক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন। যার মাধ্যমে মাধ্যমিক, উচ্চমাধ্যমিক এবং উচ্চ শিক্ষায় আগ্রহী শিক্ষার্থীদের একাডেমিক, বিভিন্ন তথ্য এবং সুনির্দিষ্ট দিকনির্দেশনামুলক গাইডলাইন সরবরাহ করে থাকে। সেই সাথে জনসচেতনতামূলক বিভিন্ন কর্মসূচীর মাধ্যমে পিছিয়ে পড়া ও অনগ্রসর মানুষের ইতিবাচক পরির্বতনে কাজ করে যাচ্ছে নিউ।

এম আর/টাইমস

Categories
দেশ রংপুর শিক্ষা সারা দেশ

পার্বতীপুরে নতুন সংগঠন ‘স্বপ্ন সারথি’

এম আর মামুন, স্টাফ রিপোর্টার:

পার্বতীপুর উপজেলার ৬নং মোমিনপুর ইউ. পির বিভিন্ন স্কুল কলেজের প্রাক্তন শিক্ষার্থী ও বর্তমানে অনার্স লেভেলে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের নিয়ে যাত্রা শুরু করেছে নতুন শিক্ষা ও জনহিতকর মূলক সংগঠন ‘স্বপ্ন সারথি’।


রোববার বিকেলে যশাই উচ্চ বিদ্যালয় আয়োজিত ইফতার মাহফিল শেষে হাজী মোহাম্মাদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের এমবিএ’র শিক্ষার্থী আব্দুল্লাহ আল মাসুমকে আহ্বায়ক ও দিনাজপুর সরকারি কলেজের এমবিএস’র শিক্ষার্থী আশরাফুল ইসলাম নয়নকে সদস্য সচিব করে ১৯ সদস্য বিশিষ্ট আহ্বায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়।

কমিটির অন্যান্য দায়িত্বপ্রাপ্তরা হলেন- যুগ্ম আহ্বায়ক রাসেল(দিসক), মাহমুদুল হাসান(হাবিপ্রবি), দূর্জয় সোহিনী(ঢাবি)।

যুগ্ম সদস্য সচিব এম আর মামুন(রাবি), আরাফাত(বশেমুরবিপ্রবি), সায়েম(ইবি), শাকিল(দিসক) এবং সদস্য অর্থ দিসকের রাকিব।সদস্য হিসেবে থাকছে- বিশাল, মোরশেদ, আলামিন, জয়নুল, মেহেদী, সায়েম, মেঘনাদ, সোহান ও আজমুল।


সংগঠনটির লক্ষ হলো, এত্র এলাকার আর্থ-সামাজিক অবস্থার কাঙ্খিত পরিবর্তন সাধনের জন্য স্থায়ীত্বশীল উন্নয়নের মাধ্যমে, আত্মনির্ভরশীল, সুখী ও সমৃদ্ধশীল অবক্ষয়মুক্ত সমাজ গঠন করা।


বিশেষ করে শিক্ষা ও জন সচেতনতামূলক বিভিন্ন কর্মসূচির মাধ্যমে পিছিয়ে পড়া ও অনগ্রসর মানুষের ইতিবাচক পরিবর্তন ও বাস্তবায়ন কাঠামো সংস্থার উদ্দেশ্যের আলোকে নির্ধারণ করা হবে।
সংগঠনটি সম্পূর্ণ সামাজিক উন্নয়নমূলক, সাংস্কৃতিক ও স্বেচ্ছায় সমাজ সেবার সংগঠন।

এলাকার শিক্ষক, চাকুরীজীবী, প্রাক্তন শিক্ষার্থী, প্রবাসী, স্কুল-কলেজ শিক্ষার্থীসহ সমাজের সর্বস্তরের লোক নিয়ে গঠিত হবে এবং সর্বশ্রেণীর উন্নয়নের জন্য কার্জক্রম পরিচালনা করবে।


বিশেষ করে সামাজিক ও শিক্ষা কর্মকান্ড পরিচালনা, মাদকাসক্ত যুবকদের সুস্থ জীবনে ফিরিয়ে আনা, সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ নিয়ন্ত্রনে আইনশৃঙ্খলা বহিনীকে সর্বাধিক সহযোগিতাসহ বিভিন্ন সামাজিক কাজ করবে সংগঠনটি।

টাইমস/পার্বতীপুর

Categories
আমার ক্যাম্পাস দেশ রংপুর রাজশাহী শিক্ষা

রাবিতে পার্বতীপুর থানা সমিতির নতুন কমিটি

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) পার্বতীপুর (দিনাজপুর জেলা) থানা সমিতির নতুন কমিটি গঠন করা হয়েছে। এতে আইন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক কে. এম. এস তারেককে সভাপতি ও ফাইন্যান্স বিভাগের ৩য় বর্ষের শিক্ষার্থী এম আর মামুনকে সাধারণ সম্পাদক করে ২০ সদস্যবিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়।

২০এপ্রিল (শনিবার) বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টুডিয়াম সংলগ্ন ঝাউবাগানে সমিতির বার্ষিক বনভোজন ও নবীন বরণ অনুষ্ঠানে এই কমিটি ঘোষণা করেন সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের সাবেক ডীন ও সমাজ বিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক এম ফয়জার রহমান।

কমিটির অন্যান্য সদস্যরা হলেন- সহ-সভাপতি-১ আরবী বিভাগের শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান, সহ-সভাপতি-২ আরবী বিভাগের আহসান হাবীব, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মার্কেটিং বিভাগের মোস্তাফিজুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক-১ আইন বিভাগের ফরহাদ মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক-২ কম্পিউটার সায়েন্স এ্যান্ড ইজ্ঞিনিয়ারিং বিভাগের নাহিদ হাসান রাজু, কোষাধ্যক্ষ দর্শন বিভাগের তারিফুল সম্রাট, দপ্তর সম্পাদক পদার্থ বিজ্ঞান বিভাগের কনক রায়, প্রচার সম্পাদক ভূ-তত্ত্ব ও খনি বিদ্যা বিভাগের লিমন আহমেদ, সহ-প্রচার সম্পাদক ফিশারিস বিভাগের সাবিকুন নাহার, সহ-প্রচার সম্পাদক ভূ-তত্ত্ব ও খনি বিদ্যা বিভাগের মাহফুজ আহমেদ, সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক গ্রাফিক ডিজাইন বিভাগের শবনম মোস্তারি মনিকা, সহ-সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের মনজুরুল ইসলাম। এবং কার্যনির্বাহী সদস্যরা হলেন- আব্দুল খালেক, হাসিবুর রহমান, তসলিম উদ্দীন, নাজিউর রহমান নাইম, রাকিবুল হাসান বুলবুল ও ইখতিয়ার উদ্দীন রনি।                 

এসময় উপস্থিত ছিলেন- ফার্মেসী বিভাগের উপ-রেজিস্ট্রার মো. জাহাঙ্গীর আলম, বিদায়ী কমিটির সহ-সভাপতি খোরশেদ আলম, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মামুন(মিতুল), বিদায়ী শিক্ষার্থী আহসান উল হাবিব রিপন, পারভেজ হাফিজসহ সমিতির অর্ধ শতাধিক শিক্ষার্থী।

এম আর/টাইমস

Categories
রংপুর রাজনীতি

লালমনিরহাটে জেলা সেচ্ছাসেবকলীগের ২৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উদযাপন।

দ্যাটাইমসঅফবিডি.কম: ঢাকা, রবিবার, ২৯ জুলাই ২০১৮ | ১৪ শ্রাবণ ১৪২৫

মিজানুর রহমান, লালমনিরহাট প্রতিনিদি: লালমনিরহাট বাংলাদেশ আওয়ামী সেচ্ছাসেবকলীগের ২৪তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে লালমনিরহাট জেলা শাখা ব্যাপক কর্মসূচী গ্রহণ করে।সকাল ০৮টায় জাতীয় ও দলীয় পতাকা উত্তোলন করেন সংগঠনের সভাপতি সাইফুল ইসলাম ও সাধারন সম্পাদক অ্যাডঃশরিফুল ইসলাম রাজু সহ জেলা শাখার নেতৃবৃন্দ। সকাল ৮’১০মিঃ জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে মাল্যদান।৮’২০মিঃ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, শহীদ জাতীয় চার নেতা,মুক্তিযুদ্ধে নিহত সকল শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নীরবতা পালন করেন।

বিকাল ০৪টায় প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে জেলা সেচ্ছা সেবকলীগের ব্যানারে বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের হয়ে শহড় পদিক্ষন শেষে জেলা মুক্তিযোদ্ধা অডিটোরিয়ামে সমবেত হন সবাই।

মুক্তিযোদ্ধা অডিটোরিয়ামে জেলা সেচ্ছা সেবকলীগের সভাপতি সাইফুল ইসলামের সভাপতিত্বে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।এসময় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ লালমনিরহাট জেলা শাখার সাধারন সম্পাদক, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অ্যাডঃমতিয়ার রহমান,বিশেষ অতিথি জাতীয় সংসদের সংরক্ষিত আসনের সাংসদ অ্যাডঃসফুরা বেগম রুমী,জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি সিরাজুল হক, জেলা আওয়ামীলীগ যুগ্ন-সম্পাদক অ্যাডঃআশরাফ হোসেন বাদল,যুগ্ন সম্পাদক অ্যাডঃনজরুল ইসলাম রাজু ,জেলা আওয়ামীলীগের কৃষিবিষয়ক সম্পাদক ও সাবেক সেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি শাহ-আলম, পৌর আওয়ামিলীগের সভাপতি সাবেক ছাত্র নেতা মোফাজ্জল হোসেন, জেলা শ্রমিক লীগের যুগ্ন আহ্বায়ক জহিরুল ইসলাম টিটু।অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন জেলা সেচ্ছা সেবকলীগের সাধারন সম্পাদক অ্যাডঃশরিফুল ইসলাম রাজু।